আলিয়া ভাট ও শাহিনকে ক্রমাগত ধর্ষণের হুমকি

ফোর্থ পিলার

প্রায় এক মাস ধরে ধর্ষণের হুমকি পাচ্ছেন আলিয়া ভাট ও তার বোন শাহিন। বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়ায় তাদের ধর্ষণ করা হবে বলে লেখা হচ্ছে। আলিয়া ভাট কিছু বলেননি এই ব্যাপারে। কিন্তু শাহিন ভাট এই বিষয় প্রকাশ্যে এনেছেন। তার ইনস্টাগ্রামে একাধিক এমন কুরুচিপূর্ণ মেসেজ, কমেন্ট এসেছে। সকল হুমকির স্ক্রিনশট শেয়ার করে ক্ষোভপ্রকাশ করেছেন তিনি।

গত ১৪ জুন বান্দ্রায় সুশান্ত সিং রাজপুত নিজের ফ্ল্যাটে আত্মঘাতী হন। এরপর থেকে সমাজের সামনে উঠে আসে বলিউডের নেপেটিজম তত্ত্ব। আলিয়া ভাটের প্রতি কর্ণ জোহর পক্ষপাতিত্ব করেন। বাবা মহেশ ভাটের সঙ্গে সুশান্ত সিং রাজপুতের বান্ধবীর বন্ধুত্বের কথা সামনে আসে। একাধিক ছবি প্রকাশিত হয়। চলে তীব্র আক্রমণ। এইসব জানার পরে নেটিজেনদের একাংশ আলিয়া ভাটকেও তীব্র আক্রমণ করতে শুরু করে।

শুরু হয় বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে তারকা ও তাদের পরিবারের ওপর আক্রমণ। অভিনেত্রীর কুরুচিপূর্ণ কথা বলা হয়। প্রতিদিন আক্রমণ চলে। সেই আক্রমণ এখনও চলছে। বডি শ্যেমিং নিয়ে আক্রমণ চলে। পাশাপাশি চলছে গালাগাল। ধর্ষণ করা উচিত আলিয়াদের। এই লেখাও হয়েছে কমেন্টে। এই হুমকির বিষয়ে আলিয়া ভাট মুখ খুলছেন না।

শাহিন ভাট বলেছেন, “প্রতি ১৫ মিনিটে একজন মহিলার ধর্ষণ হয় ভারতে। গার্হস্থ্য হিংসার শিকার হয় ৭০ শতাংশ মহিলা। সেখানে আমাদের উপর এইরকম আক্রমণে আপনি বিস্মিত ? আমি না।” শাহিন আরও বলেন, ” যারা এই ধরনের মেসেজ করছে তাদের ইনস্টাগ্রামে ব্লক করে তাদের নামে রিপোর্ট করব। দরকার পড়লে তাদের নাম ও পরিচয় সোশ্যাল মিডিয়ার সামনে আনব।” আইনি পথেও যেতে পারেন। এই কথাও জানিয়েছেন শাহিন।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।