করোনা আক্রান্ত শশী পাঁজা, রয়েছেন হোম আইসোলেশনে

ফোর্থ পিলার

এবার করোনা আক্রান্ত হয়েছেন তৃণমূলের বিদায়ী মন্ত্রী শশী পাঁজা। তিনি শ্যামপুকুর কেন্দ্র থেকে নির্বাচনে লড়ছেন। আজ বৃহস্পতিবার তার করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া গিয়েছে। তিনি নিজেই সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সাইটে এই সংবাদ দিয়েছেন। মৃদু সংক্রমণ রয়েছে শশী পাঁজার তাই হোম আইসোলেশনে চিকিৎসকদের পরামর্শ মেনে রয়েছেন তিনি। একথা নিজেই জানিয়েছেন শ্যামপুকুরের তৃণমূল প্রার্থী।

আগামী ২৬ এপ্রিল ওই কেন্দ্রে বিধানসভা নির্বাচন। তার আগে আক্রান্ত হলেন শশী পাঁজা। আজ সকালে মানিকতলার প্রার্থী প্রধানমন্ত্রী সাধন পাণ্ডের করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া যায়। তিনি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। কামারহাটির তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী মদন মিত্রও করোনা আক্রান্ত। রাজ্যে করোনার সংক্রমণ ১০ হাজারের গণ্ডি ছাড়িয়ে গিয়েছিল গতকাল। নেতা- মন্ত্রী কাউকেই করোনা ছাড়ছে না। এই অবস্থানে দুশ্চিন্তার আবহাওয়া বাড়ছে প্রতিদিন।

যাদবপুরের সিপিএম প্রার্থী সুজন চক্রবর্তী করোনা আক্রান্ত হয়েছে। প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর চৌধুরী করোনা আক্রান্ত। এছাড়াও সামশেরগঞ্জ প্রার্থী রেজাউল হক ও জঙ্গিপুরের আরএসপি প্রার্থী প্রদীপ নন্দী করোনায় প্রাণ হারিয়েছেন। রাজ্যের করোনা পরিস্থিতি অত্যন্ত দুশ্চিন্তায় জায়গায় রয়েছে।

রাজ্যে ষষ্ঠ দফায় ভোটগ্রহণ হল বৃহস্পতিবার। কোনওভাবে করোনার বিধিনিষেধ মানা হল না। সেই একই হিংসার ছবি ধরা পড়ল বিভিন্ন জায়গায়। পরিস্থিতি কোনওভাবেই বদল হল না৷ মাস্ক ছাড়াই বহু রাজনৈতিক কর্মী – সমর্থককে দেখা গেল রাস্তায়, ভোটকেন্দ্রে। নির্বাচন কমিশনের ভূমিকা নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে। কলকাতা হাইকোর্ট কমিশনের ভূমিকা নিয়ে তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করেছে। সার্কুলার জারি করে খান্ত হওয়া নয়। এবার কমিশনের কাছ থেকে কড়া পদক্ষেপ চাইছে কলকাতা হাইকোর্ট।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।