কাশ্মীরে তুসারধসে পাঁচ জওয়ান সহ মৃত ১০

ফোর্থ পিলার

জম্মু- কাশ্মীরের তুষারধসের কারণে মারা গেলেন ৫ জওয়ান সহ ১০ জন। এর মধ্যে এক জওয়ান বাঙালি। গঙ্গা বরা নামে ওই বিএসএফ জওয়ানের বাড়ি পশ্চিমবঙ্গের আলিপুরদুয়ারের মুজনাই চা বাগান এলাকায়। জানা গিয়েছে, জম্মু-কাশ্মীরে এই মুহূর্তে প্রবল তুষারপাত ও তুষারধস হচ্ছে। সেনাচৌকিগুলি অত্যন্ত খারাপ আবহাওয়ার মধ্যে রয়েছে। যে কোনও সময় বড় ধরনের দুর্ঘটনা ঘটতে পারে।

মঙ্গলবার কাশ্মীরের কুপওয়ারা জেলায় সীমান্তে প্রবল তুষারধস নামে। সোমবার গভীর রাত থেকেই এই এলাকায় তুষারপাত হচ্ছিল। একসময় তুষারধস একদম সেনাচৌকির উপর এসে পড়ে। পরিস্থিতি এতটাই খারাপ হয়ে যায় যে পাঁচ সেনা জওয়ান বরফের নিচে চাপা পড়ে যান। অন্যান্য জওয়ানদের উদ্ধার করে নিয়ে আসা সম্ভব হলেও। পাঁচজনকে মৃত অবস্থায় পাওয়া যায়। এছাড়াও সোনমার্গের কুলানগ্রাম এলাকায় পাঁচজন সাধারণ মানুষ তুষারধসের কারণে মারা গিয়েছেন। তারা স্থানীয় বাসিন্দা। ঘটনায় আরও চারজন জখম।

নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর কাশ্মীরের মাছিল সেক্টরে সেনাছাউনির উপর বিশাল তুষারধস এসে পড়ে। জওয়ানরা চাপা পড়ে যান তলায়। একাধিক জওয়ানকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তাদের অবস্থা আশঙ্কাজনক। রামপুর ও গুরেজ সেক্টরেও তুষারপাত হচ্ছে আরও বেশি পরিমাণে। দিল্লির মৌসুম ভবন জানিয়েছে, আবহাওয়ার খারাপ পরিস্থিতি জম্মু-কাশ্মীরের। জম্মু, কাশ্মীর, লাদাখ অঞ্চলে ব্যাপক তুষারপাত হচ্ছে। পাশাপাশি নামছে তুষারধস। পরিস্থিতি আরও অনেক খারাপ হতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। সেনা জওয়ানদের নিয়ন্ত্রণ রেখা বরাবর অতন্ত্র প্রহরী হিসেবে কাজ করতে হয়। এই কঠিন পরিস্থিতিতে তাদের প্রাণ সংশয় আরও অনেক বেড়ে যাচ্ছে। এর আগে সিয়াচেন অঞ্চলে দুবার তুষারঝড়ের কারণে মারা গিয়েছেন সেনা জওয়ানরা। এরপর এই দুর্ঘটনা।

আলিপুরের মুজনাই চা বাগানের পাঁচ নম্বর লাইনে পশ্চিমবঙ্গের বিবএসএফ জওয়ান গঙ্গা বরার বাড়ি। গঙ্গা বরার মৃত্যুর খবর এসে পৌঁছায় গতকালকেই। পরিজনরা কান্নায় ভেঙে পড়েন। কাশ্মীর নিয়ন্ত্রণরেখায় ছেলের পোস্টিং ছিল বলে পরিজনদের দুশ্চিন্তার সীমা থাকত না। এইভাবে ছেলেকে হারাতে হবে ভাবতে পারেনি পরিবার।অসহায় মুহূর্তে পরিবারে। এলাকায় শোকের ছায়া। সেনাবাহিনীর তরফে জানানো হয়েছে, ওই এলাকা থেকে ছয়জনকে সরানো সম্ভব হয়েছিল। কিন্তু শেষমুহূর্তে আর বাঁচানো সম্ভব হয়নি।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।