চিপকে ৩১৭ রানে জয় কোহলিদের, দুরমুশ ইংল্যান্ড

ফোর্থ পিলার

মধুর প্রতিশোধ। প্রথম ম্যাচে ভারত হেরেছিল ২২৭ রানে। দ্বিতীয় টেস্টে ৩১৭ রানে দুরন্ত জয় পেল টিম ইন্ডিয়া। এই মুহূর্তে সিরিজের অবস্থান ১-১। তৃতীয় টেস্টের জন্য বেশ অনেকটা অক্সিজেন নিল কোহলি বাহিনী।

রবিচন্দ্রন অশ্বিনের দুরন্ত শতরান। পাশাপাশি বল হাতে বোলারদের ঘূর্ণি। ইংরেজদের দর্পচূর্ণ করেছে। ভারতীয় বোলিং আক্রমণে দ্বিতীয় ইনিংসে সব থেকে সফল অক্ষর প্যাটেল। দ্বিতীয় ইনিংসে পাঁচ উইকেট নিয়েছেন তিনি। গতকাল থেকেই সময় গোনা শুরু হয়ে গিয়েছিল। তিন উইকেট পড়ে যায় দ্বিতীয় ইনিংসে ইংল্যান্ডের।

রুট ক্রিজে ছিলেন। তাকে নিয়ে কিছুটা দুশ্চিন্তা ছিল ভারতীয়দের। ৩৩ রানের মাথায় রুট আউট হয়ে যান রুট। তারপর থেকেই চাপ বাড়াতে থাকেন ভারতীয় বোলাররা। অক্ষর প্যাটেল, রবিচন্দ্রন অশ্বিন, কুলদীপ সিং সহ অন্যান্যরা কার্যত কামড় দিতে থাকেন ইংল্যান্ড ব্যাটিংয়ের উপরে। অক্ষর প্যাটেল ৫ উইকেট তুলে নেন দ্বিতীয় ইনিংসে। রবিচন্দ্রন অশ্বিন ৩ উইকেট নিয়েছেন।

অক্ষর প্যাটেলের এই টেস্ট ম্যাচ অভিষেক হল। প্রথম ম্যাচেই ৭ উইকেট তুলে নিয়েছেন তিনি। প্রথম ইনিংসে রবিচন্দ্রন অশ্বিন পেয়েছিলেন ৫ উইকেট। টেস্টে মোট আট উইকেট তিনি পেয়েছেন। রুট ছাড়া রোরি বানর্স ২৫ রান করে আউট হন। ড্যান্স লরেন্স ২৬ রান করেন। এছাড়া আর কেউ দ্বিতীয় ইনিংসে ইংল্যান্ডের হয়ে দাঁড়াতে পারেননি।

রোহিত শর্মা প্রথম ইনিংসে ১৬১ রানের একটি দুরন্ত ইনিংস খেলেছিলেন। অজিঙ্কা রাহানে ৬৭ রান করেন। ঋষভ পন্থ ৫৮ রান করেছিলেন। প্রথম ইনিংসে শূন্য রানে ফিরে গিয়েছিলেন অধিনায়ক বিরাট কোহলি। দীর্ঘসময় ধরে তিনি রান পাচ্ছেন না। স্বভাবসিদ্ধ ভঙ্গিতে দেখা যাচ্ছে না বিরাট কোহলিকে।

দ্বিতীয় ইনিংসে কিছুটা বেরিয়ে আসার চেষ্টা করেন। ৬২ রানে আউট হয়েছেন বিরাট। তবে গুরুত্বপূর্ণ ইনিংস খেলেন রবিচন্দ্রন অশ্বিন। ১০৬ রানের দুরন্ত ব্যাটিং ভারতকে এক সুবিধাজনক জায়গায় পৌঁছে দেয়। জয়ের গন্ধ তখন থেকেই ভারতীয়দের ড্রেসিংরুমে চলে এসেছিল। দ্বিতীয় টেস্টে দর্শকদের ঢোকার অনুমতি ছিল চিপকে। ভারতীয় দর্শকরাও খেলা দেখে উচ্ছ্বসিত।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।