প্রতিবেশী দেশে ভ্যাকসিন পাঠানো শুরু ভারত থেকে

ফোর্থ পিলার

আজ বুধবার থেকে ছয় প্রতিবেশী দেশে ভ্যাকসিন পাঠাচ্ছে ভারত। সাধ্যমতো কোভিড ভ্যাকসিন ভারত অন্যান্য দেশে পাঠাবে। এই কথা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি আগেই জানিয়েছিলেন।সেই কথা তিনি রেখেছেন। ভারত থেকে আজ ভ্যাকসিন যাচ্ছে ছটি দেশে। বাংলাদেশ, নেপাল, ভুটান, মায়ানমার, মালদ্বীপ ও সিসিলি এই ছটি দেশে ভ্যাকসিন পাঠানো হয়েছে।

শ্রীলঙ্কা, মরিশাস এবং আফগানিস্তানেও ভ্যাকসিন যাবে। সেক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় ছাড়পত্রের জন্য অপেক্ষা করা হচ্ছে। ভ্যাকসিন এত দেশে সরবরাহ করা হচ্ছে। ভারতবর্ষের চাহিদায় কোনও প্রভাব পড়বে না? এই প্রশ্ন উঠেছিল। সেই উদ্বেগের কোনও জায়গা নেই। একথা জানিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রদফতর। সেই দিকে নজর দেওয়া হচ্ছে। কেন্দ্রীয় বিদেশমন্ত্রক জানিয়েছে, আগে ভারতের চাহিদা মেটানো হবে। তারপর অন্য দেশের চাহিদা মেটানো হবে। এই ভ্যাকসিন পাকিস্তান পাবে না। এই কথা জানা গিয়েছে।আবেদনপত্র পাকিস্তানের নাম নেই। আবেদনপত্রে যাদের নাম আছে তাদের কাছে পাঠানো হচ্ছে কোভিশিল্ড এবং কোভ্যাকসিন।

প্রধানমন্ত্রী টুইটের মাধ্যমে জানিয়েছেন, ‘একাধিক দেশে ভ্যাকসিন পৌঁছে দিতে পেরে এবং তাদের প্রয়োজনে পাশে দাঁড়াতে পেরে ভারত গর্বিত। আমরা আশা করছি, আগামী দিনে আরও অনেক দেশে আমরা ভ্যাকসিন পাঠাতে পারব।’ ভারতে গত শনিবার থেকে টিকা দেওয়ার কাজ শুরু হয়েছে। দৈনিক লক্ষ্যমাত্রা পূরণ করা সম্ভব হচ্ছে না। তুলনামূলক কম টিকা প্রদান হচ্ছে। এই নিয়ে সচেতনতা বাড়াতে হবে। জানাচ্ছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।