ভারতীয় তরুণ বিগ্রেডের অস্ট্রেলিয়ার মাঠে শাসন

ফোর্থ পিলার

অস্ট্রেলিয়া টিম বুঝতেও পারেনি শেষ এক ঘণ্টা পরাক্রমী হয়ে উঠতে পারেন ঋষভ পন্থ ও ওয়াশিংটন সুন্দর। রীতিমতো শেষ এক ঘন্টায় এই দুই ব্যাটসম্যান টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলতে শুরু করলেন। ব্রিসবেনের গাব্বা নয়। মনে হয়েছিল এই দুই ব্যাটসম্যান ভারতের কোনও মাঠে টি-টোয়েন্টির ইনিংস খেলেছেন।

ব্রিসবেন টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসে অস্ট্রেলিয়া অলআউট হয় ২৯৪ রানে। প্রথম ইনিংসে ভারতের থেকে ৩৩ রানে অজিরা এগিয়ছিল। অস্ট্রেলিয়া ৩২৭ রানের টার্গেট দেয় সব মিলিয়ে। ভারতকে গাব্বা টেস্টে জিততে হলে শেষ ইনিংসে ৩২৮ রান তুলতে হবে। শেষদিনের লড়াই আঁকা থাকবে ভারতীয় ক্রিকেট ইতিহাসে। ভারত ৩ ওভার বাকি থাকতে জয়ের রান তুলে নেয়। ৭ উইকেটে জয় পায় ভারত।

৮৯ রানে শেষপর্যন্ত নট আউট থাকেন ঋষভ পন্থ। বল বাউন্ডারি লাইন পার করছে। ডাগআউট থেকে দৌড়ে সেইসময় ভারতীয় খেলোয়াররা চলে এসেছেন মাঠের মধ্যে। জয়ের অন্যতম কাণ্ডারী ঋষভ পন্থ তখন হেলমেট খুলে আকাশের দিকে তাকিয়ে মগ্ন রয়েছেন নিজের মধ্যে। ২-১ ফলাফলে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টেস্ট সিরিজ জয় ভারতের। আপাতদৃষ্টিতে এটি একটি ঐতিহাসিক মুহূর্ত ভারতের জন্য।

প্রথম সারির প্রায় সমস্ত ক্রিকেটার মাঠের বাইরে। বিরাট কোহলি আগেই ছুটি নিয়ে দেশে চলে এসেছিলেন। চোট- আঘাতে জর্জরিত ভারতীয় টিম। বোলিং লাইনআপ সম্পূর্ণ নতুন। আনকোরা বোলারদের উপর দায়িত্ব ছিল অস্ট্রেলিয়া ব্যাটিং লাইনআপকে রুখে দেওয়ার। সেই কাজ করেছেন মহম্মদ সিরাজ ও শার্দূল ঠাকুর। শেষ ম্যাচে পরাক্রমী হয়ে উঠেছিল টিম ইন্ডিয়া। একদম আনকোরা নতুন খেলোয়াড়দের নিয়ে মাঠে নামেন অধিনায়ক অজিঙ্কা রাহানে।

তার অধিনায়কত্ব অনেক আগেই দেখে ফেলেছিল ক্রিকেট দুনিয়া। আরও একবার তিনি তার অধিনায়ক ব্যক্তিত্ব প্রকাশ করলেন।স্বভাবসিদ্ধ ভঙ্গিতে রবি শাস্ত্রী ঋষভ পন্থকে জড়িয়ে ধরে রাখলেন দীর্ঘক্ষণ। ভারতীয়রা যেন এক স্বাধীনতার স্বাদ পেয়েছেন মাঠের মধ্যে। দীর্ঘ সময় পর এই ঐতিহাসিক জয় এসেছে। অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টেস্ট জয় এক অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ঘটনা।

শেষদিন রান তাড়া করে ম্যাচ জেতা কার্যত অসম্ভব। প্যাট কামিন্স – এর মতো বোলাররা আক্রমণ করছেন। কিন্তু সমস্ত বাধাকে প্রতিহত করে এক এক করে জয়ের দোরগোড়ায় পৌঁছে গেল ভারত। শুরুতে শুভমান গিল এক গুরুত্বপূর্ণ ইনিংস খেলেন। শেষ করলেন ঋষভ পান্থ। ওয়াশিংটন সুন্দর ২৯ বলে ২২ রানের একটি গুরুত্বপূর্ণ ইনিংস খেলে গিয়েছেন। ভারতীয় ব্রিগেড অস্ট্রেলিয়াকে শাসন করল সম্পূর্ণ।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।