ভ্যাপসা গরমে নাজেহাল দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টির পূর্বাভাস

ফোর্থ পিলার

ভ্যাপসা গরম থেকে মুক্তি পেতে পারে দক্ষিণবঙ্গ। আগামী ৪৮ ঘন্টার মধ্যে কলকাতা সহ দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলিতে বজ্রবিদ্যুৎ সহ বৃষ্টি হতে পারে। আলিপুর আবহাওয়া দফতর থেকে এই বার্তা দেওয়া হয়েছে। বিকেলের পর থেকেই মেঘের আনাগোনা দেখা যাচ্ছে। গর্জন শোনা যাচ্ছে মাঝেমধ্যেই। কার্যত হাঁসফাঁস অবস্থা এই মুহূর্তে কলকাতা সহ আশেপাশের জেলাগুলোর।

আবহাওয়া দফতর জানাচ্ছে, দুই এলাকা থেকে ভিন্ন অবস্থানের বাতাস আসছে। ক্রমে সংঘাত তৈরি হয়েছে। তার ফলেই বজ্রগর্ভ মেঘ তৈরি হবে। দক্ষিণ বঙ্গোপসাগর থেকে আদ্র বাতাস বইছে এই মুহূর্তে। পশ্চিম দিকে শুষ্ক বাতাস বইছে। এই দুইয়ের সংঘাত অবশ্যম্ভাবী। কলকাতা সহ আশেপাশের জেলাগুলিতে তার থেকেই তৈরি হবে বজ্রগর্ভ মেঘ। আজ রাত থেকে বিভিন্ন জেলায় বৃষ্টি হতে পারে। মূলত কলকাতা, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা, হাওড়া, হুগলি, নদীয়া প্রভৃতি জেলায় বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

বেশ কয়েকদিন ধরেই পূর্ব ও পশ্চিম বর্ধমান, বীরভূম, পুরুলিয়া, বাঁকুড়া জেলায় মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টি হচ্ছে। আবহাওয়া দফতর থেকে বলা হয়েছিল রবিবার থেকে মঙ্গলবার পর্যন্ত মৌসুমী অক্ষরেখার সক্রিয় থাকবে দক্ষিণবঙ্গে। দেখা যায় বৃষ্টি পশ্চিম দিকে সরে গিয়েছে। তার ফলেই ওই জেলাগুলিতে বৃষ্টির পরিমাণ বাড়ছে। উল্টোদিকে দক্ষিণবঙ্গে ফিরে এসেছে ঘাম ঝরানো আবহাওয়া। সকাল থেকেই অস্বস্তি বাড়তে শুরু করেছে। রোদের তেজ খুব একটা না থাকলেও অস্বস্তি বেড়েছে সময়ের সঙ্গে সঙ্গে।

দিনের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৪ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেড। স্বাভাবিকের থেকে প্রায় দুই ডিগ্রি বেশি। সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ২৮ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেড। এটিও স্বাভাবিকের থেকে ২ ডিগ্রি বেশি। গত ২৪ ঘণ্টায় কলকাতা সহ দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টি হয়নি। আপেক্ষিক আদ্রতা সর্বাধিক পরিমাণ ৯৩ শতাংশ। সর্বনিম্ন ৬২ শতাংশ। ফলে অস্বস্তি বাড়ছে। আবহাওয়া দফতর জানাচ্ছে, ভারী বৃষ্টিপাত না হলেও বৃষ্টি চলবে জেলাগুলিতে। কলকাতাতেও আবহাওয়ার পরিবর্তন হবে সাময়িকভাবে এই বৃষ্টির কারণে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।