মর্মান্তিক পথ দুর্ঘটনায় মৃত ৭, জখম কমপক্ষে ৩০ জন

ফোর্থ পিলার

বাস ও বোলেরো গাড়ির মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাথমিকভাবে মারা গিয়েছেন সাতজন। গুরুতর জখম ৩০ জন। মৃতের সংখ্যা বাড়তে পারে। উত্তরপ্রদেশে এই মর্মান্তিক দুর্ঘটনা ঘটেছে। শনিবার ভোররাতে এই দুর্ঘটনার খবর পাওয়া গিয়েছে। জখমদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। জেলা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অনেকে। আশঙ্কাজনক অবস্থায় রয়েছেন বেশ কিছু মানুষ। মৃতের সংখ্যা বাড়তে পারে।

ঘটনাটি ঘটেছে উত্তরপ্রদেশের পিলভিট জেলায়। পুরানপুরা এলাকায় জাতীয় সড়কের উপর এই দুর্ঘটনা ঘটে। লখনউ থেকে পিলভিট যাচ্ছিল একটি যাত্রীবাহী বাস। পুরানপুরা থেকে পিলভিট যাচ্ছিল বোলেরো গাড়িটি। বাসে কমপক্ষে ৪০ জন যাত্রী ছিল। বোলেরো গাড়িতে ছিল দশজন যাত্রী। ভোররাত তিনটে থেকে চারটের মধ্যে এই মর্মান্তিক দুর্ঘটনা ঘটে। দুটি গাড়ির মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। সংঘর্ষের পরে বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে উল্টে যায়।

দুটি গাড়ির যাত্রীরাই অত্যন্ত জখম হন। স্থানীয়রা ছুটে আসেন। ভয়ানক শব্দ শুনে স্থানীয় আসে৷ উদ্ধারের কাজে হাত লাগানো হয়। পুলিশ প্রশাসনকে খবর দেওয়া হয়। দুটি গাড়ির ভিতর থেকে যাত্রীদের উদ্ধার করা হয়। মোট সাতজন মারা গিয়েছেন ঘটনাস্থলেই। এরপর জখমদের উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। প্রাথমিক চিকিৎসার পর ছেড়ে দেওয়া হয় কিছুজনকে। গুরুতর জখমদের জেলা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

জানা গিয়েছে, বেশ কিছু লোকের অবস্থা আশঙ্কাজনক। মৃত্যুর সংখ্যা আরও বাড়তে পারে। কি কারণে দুর্ঘটনা, সে সম্পর্কে কোনও তথ্য পাওয়া যায়নি। প্রাথমিকভাবে পুলিশের অনুমান দুটি গাড়ির গতিবেগ অত্যন্ত বেশি ছিল। সে কারণেই জাতীয় সড়কের উপর আর এই দুর্ঘটনা রোখা সম্ভব হয়নি। মৃতদের পরিচয় জেনে পরিবারের লোকেদের সঙ্গে যোগাযোগ করার চেষ্টা চলছে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।