সিলিন্ডার ফেটেই ট্রেনে বিস্ফোরণ,মৃত বেড়ে ৮০

ফোর্থ পিলার

পাকিস্তানের ট্রেনে আগুন লেগে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ালো ৮০। এই সংখ্যা আরও বাড়তে পারে। প্রাথমিক তদন্তের পর জানা গিয়েছে গ্যাস সিলিন্ডার ফেটে এই দুর্ঘটনা ঘটে। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন মহিলা ও শিশু মিলিয়ে ৪০ জনেরও বেশি। তাদের অনেকের অবস্থা আশঙ্কাজনক। হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, তাদের বেশিরভাগ শরীরে আগুনে পোড়া ঘা।

প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান এই ঘটনায় অত্যন্ত দুঃখ প্রকাশ করেছেন। করাচি – রাওয়ালপিন্ডি তেজগাঁও এক্সপ্রেসে এই ভয়াবহ দুর্ঘটনা ঘটেছে।
করাচি থেকে ট্রেনটি যাচ্ছিল। অধিকাংশ যাত্রী তীর্থযাত্রায় বেরিয়েছিলেন বলে খবর। রান্নার গ্যাস বের করে প্রাতরাশ তৈরি শুরু করেছিলেন লোকজন। তখনই বিস্ফোরণ ঘটে। দুটি সিলিন্ডার বিস্ফোরণ হয়। আগুনে ঝলসে গিয়েছেন বহু মানুষ। তাছাড়াও অনেকে আতঙ্কে ট্রেন থেকে ঝাঁপ মেরেছিলেন। তারাও মারা গিয়েছেন।

মৃতদের পরিবার পিছু ১৫ লক্ষ টাকা ও আহতদের পাঁচলক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছে পাক সরকার। ট্রেনে গ্যাস সিলিন্ডারের মতো দাহ্যবস্তু নিয়ে ওঠার কোনও নিয়ম নেই। তারপরও কি করে এমন ঘটনা ঘটানো হল তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। রেল দফতরের গাফিলতি মেনে নিয়েছে সরকারপক্ষ। আগুন নেভানো হলেও কামরায় ঢোকা সম্ভব ছিল না। সেনাবাহিনী দিয়ে আটকে থাকা যাত্রীদের উদ্ধার করতে হয়।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।