২১ হাজার একদিনে রাজ্যে আক্রান্ত, মৃত ১৩৬

ফোর্থ পিলার

রাজ্যে দৈনিক করোনা আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ২১ হাজার। লক্ষ্যণীয়ভাবে উত্তর ২৪ পরগনায় সংক্রমণ লাফিয়ে বাড়ছে। মৃত্যুর সংখ্যাও বেশি। এই জেলায় ক্রমশ পরিস্থিতি ভয়াবহ আকার নিচ্ছে। সুস্থ হওয়ার সংখ্যা অনেকটাই বেড়েছে রাজ্যে। সুস্থ হওয়ার হার কিছুটা আশা দেখাচ্ছে চিকিৎসকদের মধ্যে।

গত ২৪ ঘন্টায় রাজ্যে চার জন চিকিৎসক মারা গিয়েছেন করোনায়। অন্যতম বিখ্যাত চিকিৎসক সুবীর দত্ত মারা গিয়েছেন শুক্রবার সকালে। তার মৃত্যু সংবাদ অত্যন্ত দুঃখজনক চিকিৎসক মহলের কাছে। গত ২৪ ঘন্টায় রাজ্যে ১৩৬ জন মারা গিয়েছেন। এই সংখ্যা এখন অবধি সর্বাধিক। গত ২৪ ঘন্টায় রাজ্যে ২০,৮৪৬ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১৯,১৩১ জন। সাড়ে ৯ লক্ষ মানুষ করোনা জয় করে সুস্থ হয়েছেন। রাজ্যের ১০ লক্ষ ৯৫ হাজার করোনা আক্রান্তের সন্ধান মিলেছে।

পশ্চিমবঙ্গে প্রায় ১১ হাজার মারা গিয়েছেন এই ভাইরাসে। উত্তর ২৪ পরগনায় সংক্রমণ এবারে সব থেকে বেশি। গত ২৪ ঘন্টায় এই জেলায় আক্রান্ত হয়েছেন ৪১৯৭ জন। মারা গিয়েছেন ৪২ জন। কলকাতায় আক্রান্ত হয়েছেন ৩৯৫৫ জন। মারা গিয়েছেন ৩৪ জন। দক্ষিণ ২৪ পরগনায় একদিনে মৃত্যুর সংখ্যা ১২। নদিয়াতে হাজার জনের উপরে আক্রান্ত হয়েছেন করোনায়।

হাওড়াতে গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্তের সংখ্যা ১২৬৬ জন। হুগলিতে আক্রান্ত হয়েছেন ১২৫১ জন। রাজ্যে আংশিক লকডাউন চলছে। আগামী সময় এই লকডাউনের সময়সীমা আরও বাড়ানো হবে। এই ইঙ্গিত পাওয়া যাচ্ছে। অন্যদিকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি সব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে করোনা ভাইরাস প্রসঙ্গে বৈঠক করবেন বলে খবর। গোটা দেশজুড়ে লকডাউনের সম্ভাবনা কি তাহলে জারি হচ্ছে? এই প্রশ্ন উঠছে।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।